ডেপুটেশন জমা দেওয়া নিয়ে পুলিশ ও অস্থায়ী শিক্ষকদের ধস্তাধস্তি

একতারা বাংলা, নিউজ ডেস্ক:

সমকাজে সমবেতন সহ দশ দফা দাবিতে বুধবার জেলাশাসকের নিকট ডেপুটেশন জমা দিতে এসেছিলেন মালদা জেলার চুক্তি ভিত্তিক শিক্ষক, প্রশিক্ষক এবং শিক্ষা কর্মীরা। কিন্তু শান্তিপূর্ণভাবে ডেপুটেশন জমা দেওয়াকে ঘিরে রীতিমতো উত্তেজনা তৈরি হল এলাকায়। মালদা জেলা প্রশাসনিক ভবন চত্বরে পুলিশের সঙ্গে ধ্বস্তাধস্তি ও ব্যারিকেড ভেঙে দেওয়ার অভিযোগ উঠল শিক্ষাকর্মীদের বিরুদ্ধে।

পশ্চিমবঙ্গ শিক্ষা ঐক্য মঞ্চের সদস্য মহিদুল ইসলাম জানান,চুক্তি ভিত্তিক শিক্ষা কর্মীরা সমস্ত কিছু থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। তাই স্থায়ীকরন, পেনশন, সমকাজে সমবেতন সহ দশ দফা দাবিতে ডেপুটেশন দিয়েছি জেলা প্রশাসনিক ভবনে। সংগঠনের ডাকে ১১ জানুয়ারি নবান্ন অভিযানের ডাক দেওয়া হয়েছে। তারই অঙ্গ হিসাবে প্রতি জেলায় এই সংগঠনের উদ্যোগে জেলাশাসকের মারফত মুখ্যমন্ত্রীকে কাছে দাবি-দাওয়া পত্র তুলে দেওয়া হচ্ছে। নিজেদের অধিকার আদায়ে গণতন্ত্রিক ভাবে আন্দোলন করেছে কর্মীরা।

কিন্তু পুলিশ ব্যারিকেড দেওয়ার পরে ঝামেলা শুরু হয়। যদিও জেলা শাসক রাজর্ষী মিত্র বলেন, পাঁচজনের ডেপুটেশনে আসার কথা ছিল। কিন্তু একটু উত্তেজনার সৃষ্টি হয়েছিল। পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে নিয়ে আসে। পরে ডেপুটেশন গ্রহন করা হয়।