গুসকরার ‘শবনম’ বিশ্বদরবারে ‘উমিকা’

সুদীপ শশী, কলকাতা :

পূর্ব বর্ধমানের ছোট্ট শহর গুসকরার সংস্কৃতি মনস্ক স্কুল শিক্ষক পিতার জ্যেষ্ঠ কন্যা হুসনে শবনম। ছোট থেকেই নাচ, গান, মডেলিং সহ অভিনয়ের প্রতি তীব্র ঝোঁক থাকলেও মফস্বল এলাকার বাসিন্দা হওয়ায় নিজের স্বপ্ন ও প্রতিভা নিয়ে তেমন চর্চার সুযোগ পাননি শবনম।

হুসনে শবনম

তবে তেমন সুযোগ সুবিধা না পেলেও নিজের স্বপ্নের পিছনে দৌড় থামাননি তিনি। তাঁর সেই স্বপ্ন ও জেদের জোরে বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষা গ্রহণের পাশাপাশি মডেলিং ও থিয়েটার চর্চা শুরু করেন হুসনে শবনম। ২০১৫ সালে ‘মুক্তবাংলা’ পরিচালিত সেনকো গোল্ডের সেরা সুন্দরীর মুকুট ওঠে শবনমের মাথায়।

সেনকো গোল্ড সেরা সুন্দরীর শিরোপা শবনমের মনে সুপ্ত জেদ কে সাহসে পরিণত করে। বাবা, মা, বোন সহ পুরো পরিবার তাঁকে এগিয়ে চলার সাহস জোগায়। পড়াশোনার পাঠ শেষ করে শবনম এগিয়ে যান তার স্বপ্নের পথে।

পরিবার ছেড়ে কলকাতায় মেশবাড়ি তে থেকে থিয়েটার ও মডেলিং চর্চায় ডুবিয়ে দেন নিজেকে। সাথে শর্ট ফিল্ম, টেলি ফিল্ম, সিরিয়াল সহ নানা কাজে নিজের প্রতিভার বিচ্ছুরণ ঘটাতে থাকেন।

একাধিক কাজ করার ফাঁকে শবনমের হাতে আসে ‘উমিকা’ শর্ট ফিল্মে প্রধান চরিত্রে অভিনয়ের সুযোগ। নিজের অভিনয় প্রতিভা উজাড় করে হুসনে শবনম ‘উমিকা’য় অভিনয় করেন। যা এখন বিশ্বদরবারে পুরস্কৃত। সিঙ্গাপুর Rabindra Nath Tagore International Film Festival – এ শর্ট ফিল্ম বিভাগে সেরা ছবি নির্বাচিত হয় ‘উমিকা’।

আন্তর্জাতিক নারী দিবসে হুসনে শবনম কে একতারা বাংলা’র পক্ষ থেকে জানাই আন্তরিক শুভেচ্ছা।।