নকল সোনার কয়েন দিয়ে ৩ লাখ টাকার প্রতারনা : গুসকরা

একতারা বাংলা, নিউজ ডেস্ক :

সোনার কয়েনের (Gold Coin) লোভ দেখিয়ে তিন লক্ষ টাকার প্রতারনার অভিযোগে ৩ জনকে গ্রেফতার করল গুসকরা বিট হাউসের পুলিশ। বিশেষ সূত্রে জানা গেছে, ধৃতদের নাম সাগর মণ্ডল, খোকন সাহা ও শেখ মেহের। তাঁদের মধ্যে সাগর ও খোকনের বাড়ি আউশগ্রামের ভেদিয়া অঞ্চলে।

আরও পড়ুন: সোমবার থেকে বাড়ছে মেট্রোর সংখ্যা

আর বীরভূমের সাঁইথিয়ার ভ্রমরকোল অঞ্চলের বাসিন্দা শেখ মেহের। পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, ধৃতরা ৩ লক্ষ টাকার বিনিময়ে পুরানো আমলের প্রায় ২০০ টি সোনার মুদ্রা দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দেন পশ্চিম মেদিনীপুরের দাসপুর এলাকার বাসিন্দা বিমল কুমার মালকে। কয়েকদিন আগে রাজীব দাস বলে পরিচয় দিয়ে একজন বিমলবাবুকে ফোন করে জানায় তাঁর বাড়ির পাশে একটি পুকুর খননের কাজ করতে গিয়ে একটি কলসি উদ্ধার হয়েছে।

সেই কলসিতে অনেকগুলি সোনার মোহর পাওয়া গেছে। সেগুলিকে কম টাকায় বিক্রি করে দেবেন। তারপরেই গত সপ্তাহে গুসকরা বাসস্ট্যান্ড এলাকায় তাঁকে সেই মুদ্রা দেখানো হয়। সোনা কিনা যাচাইয়ের জন্য পরীক্ষা করতে মুদ্রা থেকে এক টুকরো কেটে দেওয়া হয়। এরপর গতকাল ৩ লক্ষ টাকার বিনিময়ে ২০০ মুদ্রা বিমলবাবুকে দেওয়া হয়। পরে সেগুলি পরীক্ষা করলে দেখা যায় সেগুলি সোনার নয়।

আরও পড়ুন:  চুরি হয়ে যাওয়া দু’শো বছরের প্রাচীন শিবলিঙ্গ, মনসা মূর্তি উদ্ধার করলো আউশগ্রাম থানার পুলিশ

এরপরই রাতে গুসকরা বিট হাউসে অভিযোগ জানান বিমলবাবু। পুলিশ অভিযোগের ভিত্তিতে ধৃতদের ভেদিয়া এলাকা থেকে গ্রেফতার করে। তাঁদের কাছ থেকে ১ লক্ষ ৪০ হাজার টাকা, একটি নম্বরবিহীন মোটর বাইক ও ৬টি মোবাইল ফোন উদ্ধার করে।

Click here for follow us on facebook — Ektara Bangla

error: Alert: Content is protected !!